সিলেট ০৩:৫৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo সু-শিক্ষাই হল আগামী ডিজিটাল বাংলাদেশ গঁড়ার মূল চালিকাশক্তি- শাবিপ্রবি অধ্যাপক ড. শাহ্ মোঃ আতিকুল হক Logo মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক হুমায়ুন কবির হিরু মারা গেছেনপ্রয়ানে প্রবাসীদের শোক Logo সিলেটে তৃণমূল নারী  উদ্দ্যোক্তা সোসাইটির  সংবর্ধনা Logo নারী উদ্যোক্তাদের মাঝে তৃণমূল নারীউদ্যোক্তা সোসাইটির খাদ্য সামগ্রী বিতরণ Logo ইসলামপুরে স্বাবলম্বী উন্নয়ন সমিতির উদ্যোগে বিদ্যালয় ভিত্তিক সচেতনমূলক সভা Logo “মৌলভীবাজার জেলার সাবেক ছাত্রলীগের রিইউনিয়ন কমিটি ইউকের সভা অনুষ্টিত, Logo “অর্গ্যানাইজেশন ফর দ্য রিকগনিশন অব বাংলার প্রেসিডেন্ট ও সাবেক রাষ্ট্রদূত ড.তোজাম্মেল টনি হক আর নেই,, বিভিন্ন মহলের শোক প্রকাশ, Logo বিশ্ব মা দিবস-সব মায়েদের জন্য অফুরন্ত শ্রদ্ধা ও ভালবাসা Logo ড.এম এ ওয়াজেদ মিয়ার কর্ম জীবন থেকে অনেক শিক্ষনীয় আছে। মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী মোজাম্মেল হক Logo সিলেটের জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে মতবিনিময় সভা নকল হিজড়াদের আইনের আওতায় আনা হবে

অসাংগঠনিক কার্যকলাপ ও কমিটি বাণিজ্যের জন্য যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান লাঞ্ছিত

হাকিকুল ইসলাম খোকন,যুক্তরাষ্ট্র সিনিয়র প্রতিনিধিঃগত শনিবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২৪, ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের একটি মিটিংয়ে কেন্দ্রীয় নেতার উপস্থিতিতে সিদ্দিকুর রহমানের সকল অসাংগঠনিক,অনৈতিক অপকর্মের তীব্র প্রতিবাদ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ফজলুর রহমান। উল্লেখ্য, তিন বছর মেয়াদের জন্য গঠিত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কমিটি ১৩ বছর অতিক্রম করেছে এবং এই ১৩বছরে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান দলে অসংখ্য অসাংগঠনিক কার্যকলাপ,দলের সর্ব ক্ষেত্রে বিভক্তি, প্রতিটি স্টেটে টাকার বিনিময়ে একাধিক কমিটি দেওয়া, সভানেত্রী স্বাক্ষরিত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কমিটিতে টাকার বিনিময়ে প্রতিবছর নিয়োগ এবং বিয়োগ বাণিজ্য করে চলেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। সর্বশেষ গত একমাস যাবত সভানেত্রীর নাম ভাঙ্গিয়ে দলের শূন্যস্থান পূরণের নামে সভানেত্রী স্বাক্ষরিত কমিটিকে ছিন্ন বিচ্ছিন্ন করে অর্থের বিনিময়ে বিভিন্ন কমিটি থেকে লোক ভাগিয়ে এনে তাদেরকে নিয়োগ দিচ্ছেন। অথচ দলের সাংগঠনিক নিয়ম রীতি হচ্ছে দলের কোন শূন্যস্থান পূরণ করতে হলে সেখানে কার্যকরী পরিষদের দুই তৃতীয়াংশ সদস্যের প্রস্তাব ও সমর্থনের ভিত্তিতে সেটি করতে হয়।অথচ তিনি তার তোয়াক্কা না করে তিনি তার স্ত্রীসহ কার্যকরী কমিটির মোট চারজন সদস্য নিয়ে একের পর এক অধ্যাদেশ জারির মাধ্যমে তিনি দলে নিয়োগ বাণিজ্য করে চলেছেন। যার প্রেক্ষিতে গত ১৫ এপ্রিল যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুর রহমানের সভাপতিত্বে কার্যকরী পরিষদের করমি সভা অনুষ্ঠিত হয় ।সভায় কার্যকরী কমিটির ৯৫ ভাগ লোক উপস্থিত ছিলেন ।উপস্থিত সকল সদস্য সর্বসম্মতক্রমে সিদ্দিকুর রহমানকে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সকল কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার অনুরোধ জানান। কারণ নেত্রীর উপস্থিতিতে দলের হাজার হাজার নেতা কর্মী নো মোর সিদ্দিক স্লোগান দিয়ে নেত্রীর সম্মুখে তার প্রতি অনাস্থা জ্ঞাপন করেন ।তারপর থেকে নেত্রী বিগত পাঁচ বছর তার কোন সংবর্ধনা সভায় সিদ্দিকুর রহমানকে সভাপতিত্ব করতে দেননি। উক্ত কার্যকরী পরিষদের বিশেষ সভায় অনতিবিলম্বে তলবী সভা ডেকে সিদ্দিকুর রহমানকে অব্যাহতি দিয়ে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন এবং সভানেত্রীর নিকট দলের নতুন কমিটি গঠনের প্রস্তাব পাঠানোর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। ইতিমধ্যে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবারের সকল সংগঠনের পক্ষ থেকে যেখানে সিদ্দিক সেখানেই প্রতিরোধ কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। ডঃ সিদ্দিক ও আবদুস সামাদ আজাদ যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির অনুমোদন ছাড়া এবং জননেএীর অনুমোদিত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কমিটির শুন্যপদ পূরনের নামে অগঠনন্ত্রাএিকভাবে ও স্বৈরাচারিকাদায় যেভাবে রদ-বদল করে চলচ্ছেন যা জননেএীকেই চরম অসম্মান করার সামিল! এ ধরনের রদ-বদলের ফলে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভিতর এক চরম অবস্থা বিরাজ করছে। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ জন্মের ৩৭ বছরে এ রকম দুঃসময় আর কখনো আসে নাই।
গত ২৮ এপ্রিল নিউইয়র্কের জ্যাকসন হাইস্টস এক রেস্তারায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগে উদ্বুদ্ধ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার জন্য যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ পরিবারের এক কর্মী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সভায় শুন্যপদ পূরনের নামে অগঠনন্ত্রাএিকভাবে ও স্বৈরাচারিকাদায় যেভাবে রদ-বদল করে নুতন নুতন পদে নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে তার নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করা হয়। অবিলম্বে এ সব নিয়োগ বাতিল করা হোক।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

সু-শিক্ষাই হল আগামী ডিজিটাল বাংলাদেশ গঁড়ার মূল চালিকাশক্তি- শাবিপ্রবি অধ্যাপক ড. শাহ্ মোঃ আতিকুল হক

অসাংগঠনিক কার্যকলাপ ও কমিটি বাণিজ্যের জন্য যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান লাঞ্ছিত

আপডেট সময় : ০৩:২১:২৮ অপরাহ্ণ, শুক্রবার, ৩ মে ২০২৪

হাকিকুল ইসলাম খোকন,যুক্তরাষ্ট্র সিনিয়র প্রতিনিধিঃগত শনিবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২৪, ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের একটি মিটিংয়ে কেন্দ্রীয় নেতার উপস্থিতিতে সিদ্দিকুর রহমানের সকল অসাংগঠনিক,অনৈতিক অপকর্মের তীব্র প্রতিবাদ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ফজলুর রহমান। উল্লেখ্য, তিন বছর মেয়াদের জন্য গঠিত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কমিটি ১৩ বছর অতিক্রম করেছে এবং এই ১৩বছরে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান দলে অসংখ্য অসাংগঠনিক কার্যকলাপ,দলের সর্ব ক্ষেত্রে বিভক্তি, প্রতিটি স্টেটে টাকার বিনিময়ে একাধিক কমিটি দেওয়া, সভানেত্রী স্বাক্ষরিত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কমিটিতে টাকার বিনিময়ে প্রতিবছর নিয়োগ এবং বিয়োগ বাণিজ্য করে চলেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। সর্বশেষ গত একমাস যাবত সভানেত্রীর নাম ভাঙ্গিয়ে দলের শূন্যস্থান পূরণের নামে সভানেত্রী স্বাক্ষরিত কমিটিকে ছিন্ন বিচ্ছিন্ন করে অর্থের বিনিময়ে বিভিন্ন কমিটি থেকে লোক ভাগিয়ে এনে তাদেরকে নিয়োগ দিচ্ছেন। অথচ দলের সাংগঠনিক নিয়ম রীতি হচ্ছে দলের কোন শূন্যস্থান পূরণ করতে হলে সেখানে কার্যকরী পরিষদের দুই তৃতীয়াংশ সদস্যের প্রস্তাব ও সমর্থনের ভিত্তিতে সেটি করতে হয়।অথচ তিনি তার তোয়াক্কা না করে তিনি তার স্ত্রীসহ কার্যকরী কমিটির মোট চারজন সদস্য নিয়ে একের পর এক অধ্যাদেশ জারির মাধ্যমে তিনি দলে নিয়োগ বাণিজ্য করে চলেছেন। যার প্রেক্ষিতে গত ১৫ এপ্রিল যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুর রহমানের সভাপতিত্বে কার্যকরী পরিষদের করমি সভা অনুষ্ঠিত হয় ।সভায় কার্যকরী কমিটির ৯৫ ভাগ লোক উপস্থিত ছিলেন ।উপস্থিত সকল সদস্য সর্বসম্মতক্রমে সিদ্দিকুর রহমানকে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সকল কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার অনুরোধ জানান। কারণ নেত্রীর উপস্থিতিতে দলের হাজার হাজার নেতা কর্মী নো মোর সিদ্দিক স্লোগান দিয়ে নেত্রীর সম্মুখে তার প্রতি অনাস্থা জ্ঞাপন করেন ।তারপর থেকে নেত্রী বিগত পাঁচ বছর তার কোন সংবর্ধনা সভায় সিদ্দিকুর রহমানকে সভাপতিত্ব করতে দেননি। উক্ত কার্যকরী পরিষদের বিশেষ সভায় অনতিবিলম্বে তলবী সভা ডেকে সিদ্দিকুর রহমানকে অব্যাহতি দিয়ে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন এবং সভানেত্রীর নিকট দলের নতুন কমিটি গঠনের প্রস্তাব পাঠানোর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। ইতিমধ্যে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবারের সকল সংগঠনের পক্ষ থেকে যেখানে সিদ্দিক সেখানেই প্রতিরোধ কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। ডঃ সিদ্দিক ও আবদুস সামাদ আজাদ যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির অনুমোদন ছাড়া এবং জননেএীর অনুমোদিত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের কমিটির শুন্যপদ পূরনের নামে অগঠনন্ত্রাএিকভাবে ও স্বৈরাচারিকাদায় যেভাবে রদ-বদল করে চলচ্ছেন যা জননেএীকেই চরম অসম্মান করার সামিল! এ ধরনের রদ-বদলের ফলে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভিতর এক চরম অবস্থা বিরাজ করছে। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ জন্মের ৩৭ বছরে এ রকম দুঃসময় আর কখনো আসে নাই।
গত ২৮ এপ্রিল নিউইয়র্কের জ্যাকসন হাইস্টস এক রেস্তারায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগে উদ্বুদ্ধ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার জন্য যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ পরিবারের এক কর্মী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সভায় শুন্যপদ পূরনের নামে অগঠনন্ত্রাএিকভাবে ও স্বৈরাচারিকাদায় যেভাবে রদ-বদল করে নুতন নুতন পদে নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে তার নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করা হয়। অবিলম্বে এ সব নিয়োগ বাতিল করা হোক।